পুজোর আগে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে দমকল মন্ত্রী - presscard | প্রেসকার্ড | press card news |

Post Top Ad

Post Top Ad

Monday, 20 September 2021

পুজোর আগে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে দমকল মন্ত্রী


নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা : হাতেগোনা আর কয়েকটা দিন বাকি। তারপরে দুর্গা পুজো। তাই দুর্গা পুজোর আগেই দমকল বিভাগ সমস্ত অফিসারদের নিয়ে একটি মিটিং করলেন। এদিন মিটিংয়ে উপস্থিত ছিলেন দমকল মন্ত্রী সুজিত বসু। মিটিং শেষে সুজিত বসু সাংবাদিক সম্মেলন করেন। সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি কতগুলো বিষয় তুলে ধরেন।



তিনি জানিয়েছেন সামনে পুজো । তাই বড় থেকে ছোট সমস্ত প্যান্ডেলগুলিকে ফায়ার লাইসেন্স দেওয়া হচ্ছে ফ্রিতে। যা আগেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করে দিয়েছিলেন। আগের বছর যে সমস্ত প্রোটোকল ছিল সেই সমস্ত প্রোটোকল মেনে এবারের পুজোও হবে এবং দমকল বিভাগ সেই সমস্ত নিয়ম মানবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। 



পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন এই মুহূর্তে দমকলের গোটা রাজ্য জুড়ে ১৫৪টি ফায়ার স্টেশন রয়েছে। এর সঙ্গে আরও বাইশটি ফায়ার স্টেশন যুক্ত হচ্ছে টেম্পোরারি ভাবে। যদি কোথাও কোনও রকম অসুবিধা হয় তাহলে মানুষের কাছে সরাসরি পৌঁছাতে পারবে দমকল বিভাগ। সেইসঙ্গে আছে ২০০টি মোটরসাইকেল। যারা সমস্ত প্যান্ডেলে প্যান্ডেলে টহল দেবে। তার কারণ অনেক ছোট রাস্তা রয়েছে যেখানে দমকলে গাড়ি পৌছাতে পারেনা। সেইখানেই মোটরসাইকেল গুলি দ্রুত পৌঁছে যাবে সেই ব্যবস্থা করা হয়েছে।



এছাড়া তিনি জানিয়েছেন করোনা  আবহে দুর্গা পুজো হচ্ছে মানুষকে সমস্ত নিয়মকানুন মানতে হবে। বড় বড় প্যান্ডেলে স্যানিটাইজেশন এর ব্যবস্থা রাখতে হবে এবং সমস্ত মানুষকে মাস্ক ব্যবহার করতে হবে। তারা যেন এই দিকগুলো বরাবরই বজায় রাখেন সেদিকে নিজেদের খেয়াল রাখতে হবে। অন্যদিকে তিনি জানিয়েছেন শহর কলকাতা এবং পার্শ্ববর্তী জেলায় কয়েকটি আগুনের বড় বড় ঘটনা ঘটেছে তারমধ্যে উল্ল্যেখযোগ্য নিমতলা ঘাট স্ট্রিটে যে কাঠের গুদামে আগুন লাগে তা নিয়ে ইতিমধ্যে সেখানকার চেয়ারম্যানের সাথে মিটিং এ বসবেন সামনের সপ্তাহে। উপস্থিত থাকবেন ডক্টর শশী পাঁজা।




অন্যদিকে পোর্ট ট্রাস্টের আগুন লাগে। তাদেরও নোটিশ পাঠানো হয়েছে। সেখানে কি কারণে আগুন লাগে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। অন্যদিকে ডানকুনিতে স্টার ব্যাটারি কোম্পানিতে আগুন লাগে যদিও তাদের ফায়ার লাইসেন্স ছিল। কিন্তু ফায়ার সার্টিফিকেট ছিল না সে বিষয়ে তাদেরকে সতর্ক করা হয়েছে ।১৫০০০  বিঘা জমি নিয়ে তাদের কোম্পানি ফায়ার সার্টিফিকেট রাখা অতি অবশ্যই দরকার। সে বিষয়ে তাদেরকে খেয়াল রাখতে বলা হয়েছে। 


এছাড়া মানুষকে বারবার করে বলা হচ্ছে যারা ফায়ার লাইসেন্স এখনো পর্যন্ত দেননি তারা যেন ফায়ার লাইসেন্স ইতিমধ্যে গ্রহণ করেন এবং পুজোর আগে সবাইকে সমস্ত দায়িত্ব পালন করতে হবে বলে জানিয়েছেন সুজিত বসু।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad