সন্ত্রাসবাদীদের সঙ্গে শরদ পাওয়ারের সম্পর্ক! বিস্ফোরক দিলীপ, নিশানায় মমতাও - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Thursday, 16 June 2022

সন্ত্রাসবাদীদের সঙ্গে শরদ পাওয়ারের সম্পর্ক! বিস্ফোরক দিলীপ, নিশানায় মমতাও


'শরদ পাওয়ারের সন্ত্রাসবাদীদের সঙ্গে সম্পর্ক ছিল', বিস্ফোরক অভিযোগ বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি তথা সাংসদ দিলীপ ঘোষের। তিনি বলেন, আমাদের দেশে এমন রাষ্ট্রপতি থাকলে সন্ত্রাসও বাড়বে।   বৃহস্পতিবার ইকো পার্কে প্রাতঃভ্রমণে বেরিয়ে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এই মন্তব্য করেন তিনি। শরদ পাওয়ারের পাশাপাশি এই প্রসঙ্গে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কেও নিশানা করে দিলীপ ঘোষ।


তিনি বলেন, 'দিদি মনে করেন সবাই একবার তাঁর নাম বললে তিনি রাজি হয়ে যাবেন। কিন্তু তার নাম কেউ বলছেন না। রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের আগে মমতার ডাকা বিরোধী দলের বৈঠকে ১৬টি দল অংশ নিলেও তাদের অস্তিত্ব নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে দিলীপ ঘোষের মনে। তিনি কটাক্ষ করে বলেন, 'মুখ্যমন্ত্রীর সর্বভারতীয় নেত্রী হওয়ার আকাঙ্ক্ষা বহুদিন ধরে।'


উল্লেখ্য, এনসিপি সুপ্রিমো শরদ পাওয়ার ১৮ জুলাই অনুষ্ঠিতব্য আসন্ন রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের দৌড় থেকে কিছুদিন আগেই  নিজেকে দূরে সরিয়ে নিয়েছিলেন, তবে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দিল্লীতে তার বাড়িতে গিয়ে দেখা করেছেন। এ সময় তারা দু'জন রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে আলোচনা করেছেন বলে সূত্রে জানা গেছে। এই বৈঠক প্রায় ২০ মিনিট স্থায়ী হয়।  


বৈঠক প্রসঙ্গে শারদ পাওয়ার ট্যুইট করে লিখেছেন যে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আজ দিল্লীতে আমার বাসভবনে আমার সাথে দেখা করেছেন। আমাদের মধ্যে দেশের বিভিন্ন বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে।


শরদ পাওয়ারকে নিশানা করা ছাড়াও দিলীপ ঘোষ বলেন, লোকেরা সিবিআইয়ের উপর বিশ্বাস হারাচ্ছে।  তবে, সর্বোপরি সিবিআই তদন্তে তাঁর আস্থা রয়েছে।  বিরোধী ঐক্যকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, ১৯-এর নির্বাচনের আগে একটি বড় সমাবেশ হয়েছিল, যাতে অনেক বিরোধী দলের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। তারা সব কোথায়?  তিনি এও বলেন, 'বিশ্বাসযোগ্য কোনও নেতা নেই।'

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad