উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে দূরত্ব ! কী চলছে মমতার মস্তিষ্কে? - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Friday, 22 July 2022

উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে দূরত্ব ! কী চলছে মমতার মস্তিষ্কে?


উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট দেওয়া থেকে বিরত থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দল তৃণমূল কংগ্রেস। বৃহস্পতিবারই দলের তরফে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় এই ঘোষণা দেন। 


উল্লেখ্য, পশ্চিমবঙ্গের প্রাক্তন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় এনডিএ-র উপরাষ্ট্রপতি পদ প্রার্থী। অন্যদিকে বিরোধীদের তরফে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী কংগ্রেসের প্রবীণ নেত্রী মার্গারেট আলভা। এই নির্বাচনটি ৬ আগস্ট অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে। 


তবে উপরাষ্ট্রপতি পদের প্রার্থী বাছাই করতে বিরোধীদের বৈঠকে তাঁর প্রতিনিধি পাঠাননি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিশ্লেষকদের মতে, তখন থেকেই স্পষ্ট ইঙ্গিত ছিল যে, এই বিষয়ে অন্য পথে যেতে পারেন মমতা। মার্গারেট আলভা বিরোধী দলগুলোর পক্ষে মনোনয়ন জমা দেন। কিন্তু মমতার পক্ষ থেকে এ বিষয়ে তখনও কোনও মন্তব্য করা হয়নি এবং তার দলের কেউই মনোনয়ন কর্মসূচিতেও যোগ দেননি। 


তৃণমূলের এক বরিষ্ঠ নেতারা আগেই জানিয়েছিলেন, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ২১শে জুলাই বৈঠক ডেকেছেন। যেখানে তিনি বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করে দলের অবস্থান ঘোষণা করবেন। আর এখানেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট দান থেকে বিরত থাকবে তৃণমূল।


তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, 'উপরাষ্ট্রপতি প্রার্থী মনোনয়নের আগে আমাদের সম্মতি নেওয়া হয়নি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সমস্ত সাংসদের সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে এনডিএ প্রার্থী জগদীপ ধনখড়কে টিএমসি সমর্থন করবে না।'


তিনি আরও বলেন, 'আজকের বৈঠকে অংশ নেওয়া ৮৫ শতাংশ সাংসদ বলেছেন যে, বিরোধীরা যেভাবে টিএমসির সাথে আলোচনা না করেই তাদের প্রার্থী নির্ধারণ করেছে, আমরা বিরোধী দলের উপরাষ্ট্রপতি প্রার্থীকে ভোট দেব না। বিরোধীরা উপরাষ্ট্রপতি প্রার্থীর বিষয়ে আমাদের সঙ্গে পরামর্শ করেনি।'


এরপর থেকেই বিভিন্ন মহলে প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, এই সিদ্ধান্ত কেন? ঠিক কী চলছে তৃণমূল সুপ্রিমোর মস্তিষ্কে? তৃণমূল কংগ্রেসের আভ্যন্তরীণ সূত্র বলেছ যে, বিজেপির কাছে একটি বিশ্বাসযোগ্য প্রতিদ্বন্দ্বী হিসাবে তার পরিচয় প্রতিষ্ঠা করতে চায় তৃণমূল। আর এতে কংগ্রেসকেও দোসর করতে চায় তারা। কিন্তু কংগ্রেস সমগ্র বিরোধীদের মনোবল নষ্ট করছে, তৃণমূলের প্রতি।  


এদিকে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দিল্লীর জন্য তাঁর লক্ষ্য নির্ধারণ করেছেন এবং এর জন্য তাঁর প্রয়োজন ঐক্যবদ্ধ বিরোধী দল। তৃণমূল সূত্রে জানা গিয়েছে, তিনি সেই লক্ষ্যেই কাজ করবেন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad