পৃথিবীর সবচেয়ে নোংরা মানুষ! ৬৭ বছর পর স্নান করতেই মৃত্যু - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Tuesday, 25 October 2022

পৃথিবীর সবচেয়ে নোংরা মানুষ! ৬৭ বছর পর স্নান করতেই মৃত্যু


শীতের মরসুম আসতে চলেছে এবং এই ঋতুতে অনেকেই অনেক দিন পর পর স্নান করেন। কিন্তু আপনি কি জানেন যে, পৃথিবীতে এমন একজন মানুষ ছিলেন যিনি ৬৭ বছর ধরে স্নান করেননি এবং তার সাথে এমন দুর্ঘটনা ঘটে যে, স্নান করার সাথে সাথে তিনি মারা যায়।


ইরানের বাসিন্দা আমু হাজি নামের এক ব্যক্তি 'পৃথিবীর সবচেয়ে নোংরা মানুষ' হিসেবে বিখ্যাত ছিলেন, কারণ তিনি স্নান করেছেন, তার ৬৭ বছর পেরিয়ে যায়। তার অবস্থা দেখে মনে হত, তিনি যেন ভিক্ষুকদের চেয়েও খারাপ।


সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়, ৯৪ বছর বয়সী আমু হাজি জলকে খুব ভয় পেতেন। জল তাঁর মধ্যে এমন এক অদ্ভুত ভয় তৈরি করেছিল যে, তিনি ভেবেছিলেন, যদি ভুল করেও তিনি স্নান করে ফেলেন তবে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়বেন। তবে, এখন যখন তিনি মারা গেছেন, তার আশঙ্কাই সত্য প্রমাণিত হচ্ছে বলে মনে হচ্ছে। বলা হচ্ছে যে, তিনি দক্ষিণাঞ্চলীয় ফারস প্রদেশের দেগাহ গ্রামে মারা গেছেন এবং মৃত্যুর কারণ তার ভয়, অর্থাৎ স্নান করা।


প্রতিবেদন অনুযায়ী, কয়েক মাস আগে গ্রামবাসীরা তাকে জোর করে ধরে বাথরুমে নিয়ে যায় এবং স্নান করায়, এরপর তাঁর স্বাস্থ্যের অবনতি হয়। এখন ৬৭ বছরের মধ্যে প্রথমবার স্নান করার পরে, তার স্বাস্থ্য এমন সংকটজনক অবস্থায় পৌঁছে যায় যে, তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।


ইরানি সংবাদমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী, আমু হাজি মৃত পশুর মাংস খেতে পছন্দ করতেন। এছাড়া পশুর শুকনো মল দিয়ে পাইপ সিগারেট তৈরি করে পান করতেন। ২০১৩ সালে, তার ওপর একটি তথ্যচিত্রও নির্মিত হয়েছিল, যেখানে তার জীবনের সাথে সম্পর্কিত সত্যটি বলা হয়েছিল।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad