গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খুবই উপকারী, জেনে নিন এর উপকারিতা গুলি - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Saturday, 21 January 2023

গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খুবই উপকারী, জেনে নিন এর উপকারিতা গুলি

 


গর্ভাবস্থায় মহিলাদের স্বাস্থ্যের যত্ন নেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই সময়ে, গর্ভবতী মহিলার শরীরে অনেক পরিবর্তন হয়। এই সময়ে, মহিলার মধ্যে হরমোনের পরিবর্তন হয়, যা পুরো শরীরকে প্রভাবিত করে। এই সময়ে রক্তস্বল্পতা, মর্নিং সিকনেস এবং কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো সমস্যাগুলি মহিলাকে খুব বিরক্ত করে।


গর্ভাবস্থায় মহিলাদের জন্য খাদ্যের যত্ন নেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এই সময় মহিলাদের স্বাস্থ্যকর খাদ্য গ্রহণ করা উচিত। খাদ্যতালিকায় মৌসুমি ফল ও শাকসবজি খান। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে, গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য একটি ওষুধের মতো কাজ করে।


টেসটিউব বেবি কনসালট্যান্ট এবং প্র্যাকটিসিং গাইনোকোলজিস্ট, ডাঃ সুপ্রিয়া পুরাণিকের মতে, গর্ভাবস্থায় শিশুর পেটে গুড়গুড় করলে মহিলার রক্তশূন্যতা হয়, পুষ্টিকর খাবার না নিলে সমস্যা বাড়তে থাকে। বিশেষজ্ঞদের মতে, এই সময়ে পেয়ারা খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। আসুন জেনে নিই গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য কতটা উপকারী।


পেয়ারা অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল, অ্যান্টিফাঙ্গাল, ভিটামিন সি, কে,

B6, ফোলেট, নিয়াসিন, অ্যান্টিডায়াবেটিক, অ্যান্টি-ডায়ারিয়াল,

আয়রন, ফসফরাস, ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, জিঙ্ক, কপার, এটি কার্বোহাইড্রেট, ডায়েটারি ফাইবার ইত্যাদি পুষ্টিতে সমৃদ্ধ। পেয়ারা ক্যালসিয়ামের একটি চমৎকার উৎস। এটি পেট সংক্রান্ত সমস্যা প্রতিরোধ করে। পেয়ারা খেলে কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো সমস্যা হয় না। কিভাবে পুষ্টি সমৃদ্ধ পেয়ারা গর্ভাবস্থায় শিশু এবং মায়ের স্বাস্থ্যের উন্নতি করতে পারে।


গর্ভাবস্থায় একজন মহিলার অনাক্রম্যতা শক্তিশালীকরণ জরুরি। এই সময় শক্তিশালী রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শরীরকে রোগ থেকে রক্ষা করে এবং শরীরকে সুস্থ করে তোলে। ভিটামিন ই, ভিটামিন বি এবং ভিটামিন সি সমৃদ্ধ পেয়ারা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করে এবং মহিলাকে সুস্থ রাখে। ডাঃ সুপ্রিয়া পুরাণিকের মতে, গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খাওয়া গর্ভবতী মহিলাকে সুস্থ রাখে।


পেয়ারা গর্ভাবস্থায় হজমশক্তি উন্নত করে।গর্ভাবস্থায় হরমোনের পরিবর্তন হজমেও প্রভাব ফেলে এই সময় হজমশক্তি দুর্বল হতে থাকে। কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা বাড়তে থাকে, এই সময়ে পেয়ারা খেলে কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করে। পটাসিয়াম সমৃদ্ধ পেয়ারা হার্ট পোড়ার মতো সমস্যা প্রতিরোধ করে।পেয়ারা শিশুর স্বাস্থ্য ভালো রাখে।ভিটামিন ও খনিজ উপাদানে ভরপুর পেয়ারা শিশুর স্বাস্থ্য ভালো রাখে


ঠিক করে পেয়ারায় উপস্থিত ভিটামিন ই শিশুর ভ্রূণের বিকাশে সহায়ক।ভিটামিন ই জন্ম থেকে শিশুর হৃদপিণ্ডের বিকাশে সহায়ক। গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খাওয়া শিশুর জন্য খুবই উপকারী। গর্ভাবস্থায় পেয়ারা খেলে শিশুর যেকোনো ধরনের ত্রুটি হওয়ার আশঙ্কা কমে। পেয়ারা গর্ভপাতের ঝুঁকি কমায়


গর্ভপাতের ঝুঁকি কমায়


পেয়ারা ফলিক অ্যাসিড এবং খনিজ সমৃদ্ধ যা গর্ভপাত এবং অকাল প্রসবের সম্ভাবনা কমায়। এটি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী করে এবং সংক্রমণের ঝুঁকি কমায়। পেয়ারা খেলে কোলেস্টেরল নিয়ন্ত্রণে থাকে, এটি রক্তকে ঘন হতে বাধা দেয়, যা গর্ভপাতের সম্ভাবনা কমায়।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad