ত্রিপুরা নির্বাচনে একাই লড়বে তৃণমূল! ৬-৭ ফেব্রুয়ারি মমতা-অভিষেকের সফর - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Saturday, 21 January 2023

ত্রিপুরা নির্বাচনে একাই লড়বে তৃণমূল! ৬-৭ ফেব্রুয়ারি মমতা-অভিষেকের সফর



ত্রিপুরায় বিধানসভা নির্বাচনে একাই লড়বে তৃণমূল কংগ্রেস।  তৃণমূল কংগ্রেস সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং দলের জাতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় 6 ও 7 ফেব্রুয়ারি ত্রিপুরায় 16 ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারের জন্য ত্রিপুরা সফর করছেন৷  এ সময় তিনি নির্বাচনী সভায় বক্তব্য রাখবেন।  এদিকে, এই সমস্ত বিষয়ে একটি ব্লু প্রিন্ট তৈরি করতে সম্প্রতি একটি গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক করেছে ত্রিপুরা তৃণমূল।  বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন ত্রিপুরার তৃণমূলের সুপারভাইজার রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, তৃণমূলের রাজ্যসভার সাংসদ সুস্মিতা দেব প্রমুখ।



 বৈঠকের পরে, তৃণমূল নেতা রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, “আমরা 60 টি আসনের জন্য 120 টি নামের তালিকা পেয়েছি।  আমরা আসনক্রমে আলোচনা করেছি।  এই বৈঠকের পরই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ত্রিপুরা সফর ঠিক হয়েছে।



তৃণমূল মুখপাত্র কুণাল ঘোষ বলেন, “কংগ্রেস বেশ কয়েকটি রাজ্য নির্বাচনে এবং 2014 এবং 2019 লোকসভা নির্বাচনে ব্যর্থ হয়েছে।  তাই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রস্তাব অনুযায়ী একটি বৈজ্ঞানিক পদ্ধতিগত প্রতিবাদ ব্যবস্থা তৈরি করা উচিৎ।  আমি চাই কংগ্রেস এটা বুঝত।  মুখ্যমন্ত্রী প্রস্তাব দিয়েছিলেন যে বিরোধী দলগুলির মধ্যে একটি সমন্বয় দল থাকা উচিৎ এবং অন্যান্য রাজ্যে, বিশেষ করে বিজেপি শাসিত রাজ্যগুলিতে একটি যৌথ কর্মসূচি হওয়া উচিৎ, কিন্তু কংগ্রেস সাড়া দেয়নি।  তারা একা চলার চেষ্টা করছে।"


 


ত্রিপুরায় বিজেপি সরকার আছে।  রাজনৈতিক মীমাংসার পথে হাঁটছে বাম-কংগ্রেস।  যদিও ত্রিপুরায় আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপিকে ক্ষমতাচ্যুত করতে কাগজে-কলমে জোটের ঘোষণা দেয়নি।  ইতিমধ্যে উভয় দলই যৌথ মিছিলের ঘোষণা দিয়েছে।  রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায় এ প্রসঙ্গে বলেন, “তৃণমূল কংগ্রেস সবসময় একা চলাফেরা করতে বিশ্বাস করে।  আমরা একাই ১০০।  আমাদের সম্পদ মমতা-অভিষেক।  এখন পর্যন্ত আমরা একা দাঁড়িয়ে থাকব।  নির্বাচনে আমরা ভালো ফল পাব।”


 

 এর পরে, বাম-কংগ্রেস জোটকে কটাক্ষ করে রাজীব বলেন, "আপনি ইতিমধ্যেই জোটের ফলাফল দেখেছেন।  যেখানে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে।  বাম বা কংগ্রেস ছিল গড়পড়তা।  এবারের নির্বাচনে ভিন্ন চিত্র দেখতে পাবেন।  তৃণমূল কংগ্রেস এটাকে নতুন ভাবে দেখবে।"  রাজীব দাবী করেছেন যে এর আগেও বাম-কংগ্রেস তৃণমূলের ভোট কেটেছে।  এবারও তাই করবেন বলে মনে করছেন তৃণমূল নেত্রী। 



 তিনি বলেন, “এর আগেও আপনি দেখেছেন যে বাংলাই একমাত্র জায়গা যেখানে বিজেপি পরাজিত হয়েছিল।  গোয়ার কংগ্রেস বিধায়করা বিজেপিতে চলে গেছেন।  ত্রিপুরা তৃণমূলের অন্যতম নেতা সুস্মিতা দেব আবার বলেন, “2018 সালে বিজেপির কোনও সমর্থন ছিল না।  এমনকি ত্রিপুরায়ও।  বামদের ভোট গেল বিজেপিতে।  এখন বাম-কংগ্রেস জোট আছে, যারা বিজেপি চায় না তারা বামেও যাবে না।"

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad