জেনে নিন ট্যানিং দূর করার ৫টি ঘরোয়া উপায় - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Tuesday, 24 May 2022

জেনে নিন ট্যানিং দূর করার ৫টি ঘরোয়া উপায়


তাপ শুধু আমাদের শরীরকে ডিহাইড্রেট করে না, আমাদের ত্বককে প্রাণহীন ও শুষ্ক করে তোলে। সূর্যের অতিবেগুনী রশ্মি ত্বককে ট্যান করে এবং এর আর্দ্রতা কেড়ে নেয়। ট্যানিং অকাল বার্ধক্যের ঝুঁকিও বাড়ায়। আমরা ট্যানিং দিয়ে আমাদের মুখের যত্ন নিই, কিন্তু আমাদের হাতের কী হবে? শক্তিশালী সূর্যালোক তাদেরও ট্যান করতে পারে। হাতের যত্ন নেওয়া সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কারণ তারাই প্রথম সূর্যের সংস্পর্শে আসে। ক্ষতিকর রশ্মি থেকে হাত রক্ষা করা খুবই কঠিন। তবে চিন্তা করবেন না কারণ আমাদের কাছে আপনার জন্য কিছু কার্যকরী ঘরোয়া প্রতিকার রয়েছে (কিভাবে ট্যানিং দূর করবেন), যা হাতের ট্যানিং সম্পূর্ণরূপে অদৃশ্য করে দেবে।


জেনে নিন হাতের ট্যানিং দূর করার কিছু ঘরোয়া উপায়

লেবুর রস

লেবুর রসে উপস্থিত ভিটামিন সি ত্বকের কোষকে UV রশ্মি থেকে রক্ষা করে। এক বাটি গরম লেবুর রস নিন। এতে কিছু জলও যোগ করতে পারেন। আপনার ট্যান করা হাত এতে প্রায় 15 মিনিট ভিজিয়ে রাখুন। ঠান্ডা জল দিয়ে আপনার হাত ধুয়ে নিন এবং নিশ্চিত করুন যে আপনি এর পরে আপনার ত্বককে ময়শ্চারাইজ করুন কারণ লেবুর রস আপনার ত্বককে শুষ্ক করে তুলতে পারে।


 টমেটো লাগান

টমেটো ত্বকের জন্য দারুণ। এটি লাইকোপেন সমৃদ্ধ, একটি শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা ক্ষতিকারক UV রশ্মি এবং ত্বকের ক্যান্সার থেকে ত্বককে রক্ষা করতে সাহায্য করে। এটিতে শীতল করার বৈশিষ্ট্যও রয়েছে যা রোদে পোড়া দাগ প্রশমিত করে।আসলে, টমেটো দিয়ে ট্যান হাতের চিকিত্সা করাও খুব ভাল। লাইকোপিন উপাদান হাতের রক্তনালীগুলিকেও স্থিতিশীল করে, যার ফলে ত্বকের রঙ সমান হয়। টমেটোর সজ্জা এবং বেসন থেকে সহজভাবে একটি হ্যান্ড স্ক্রাব তৈরি করুন এবং সপ্তাহে অন্তত দুবার ব্যবহার করুন।


দই এবং মধু

হাতের সানটানগুলির বিরুদ্ধে সবচেয়ে কার্যকর উপাদানগুলির মধ্যে একটি হল দই, যা ল্যাকটিক অ্যাসিডের মতো বেশ কয়েকটি এনজাইম সরবরাহ করে। এটি সানটান, নিস্তেজ এবং মৃত ত্বকের কোষ, পিগমেন্টেশন ইত্যাদি মোকাবেলায় সহায়তা করে। দই রোদে পোড়া ত্বককে প্রশমিত করতেও সাহায্য করে।


মধু

মধু একটি প্রাকৃতিক অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ট্যান এজেন্ট, তাই দুটির সংমিশ্রণ শক্তিশালী! একটি বাটি তাজা দইয়ে 2 চা চামচ মধু যোগ করুন এবং ভালভাবে মেশান। আপনার হাতে প্রয়োগ করুন এবং 20 মিনিটের জন্য রেখে দিন। ধুয়ে শুকিয়ে নিন সপ্তাহে দুবার এটি লাগান।


হলুদ এবং চন্দন

2 চা চামচ চন্দন গুঁড়ো এবং হলুদ গুঁড়ো নিন এবং ভালভাবে মেশান। এতে 2 থেকে 3 ফোঁটা গোলাপ জল মিশিয়ে ঘন পেস্ট তৈরি করুন। এই পেস্টটি আপনার হাতে লাগান এবং 30 মিনিটের জন্য রেখে দিন। পরিষ্কার জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এই পেস্টটি ত্বকের বর্ণ উন্নত করবে এবং ক্ষতিগ্রস্থ স্থানগুলির চিকিত্সা করবে।


অ্যালোভেরা জেল

অ্যালোভেরা জেলে উপস্থিত অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আমাদের ত্বকের কোষকে ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করে এবং ট্যানিং দূর করতে সাহায্য করে। অ্যালোভেরা পাতার রস থেকে কিছু তাজা অ্যালোভেরা ক্লিয়ার জেল নিন এবং আপনার হাতে লাগান। সারারাত রেখে সকালে পরিষ্কার জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad