বট সাবিত্রী ব্রত কখন হয়? জেনে নিন তিথি, শুভ সময়, গুরুত্ব ও পূজা পদ্ধতি - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 11 May 2022

বট সাবিত্রী ব্রত কখন হয়? জেনে নিন তিথি, শুভ সময়, গুরুত্ব ও পূজা পদ্ধতি


বট অমাবস্যা জ্যৈষ্ঠ মাসের অন্যতম সেরা এবং সবচেয়ে কার্যকর উপবাস হিসাবে বিবেচিত হয়।  এই রোজা পালনের মাধ্যমে ভাগ্যবান নারীরা তাদের স্বামীর দীর্ঘায়ু ও সমৃদ্ধি কামনা করেন।  এই দিনে মহিলারা উপবাস রাখেন এবং বট গাছের কাছে গিয়ে যথাযথভাবে পূজা করেন।  এর পাশাপাশি তারা গাছের চারপাশে ঘুরে বেড়ায়।  ধর্মীয় বিশ্বাস অনুসারে, এটি করলে স্বামীর জীবনের বাধা দূর হয় এবং সুখ ও সমৃদ্ধি সহ দীর্ঘায়ু হয়।


 বট সাবিত্রী ব্রত ৩০ মে ২০২২ তারিখে সোমবার পালন করা হবে।  অমাবস্যা তিথি ২৯ মে দুপুর ০২:৫৫ মিনিট থেকে শুরু হবে, যা ৩০ মে বিকাল ০৫ টা পর্যন্ত থাকবে।


 বুধ বৃষ রাশিতে ৬৮ দিন থাকবে, ২ জুলাই পর্যন্ত, এই ৩ টি রাশির চিহ্ন অগ্রগতি পাবে এবং অর্থ লাভ করবে।


 বট সাবিত্রী ব্রতের গুরুত্ব-


শাস্ত্র অনুসারে, সাবিত্রী বটগাছের নীচে বসে তার স্বামী সত্যবানকে পুনরুজ্জীবিত করেছিলেন।  দ্বিতীয় কাহিনী অনুসারে, ভগবান শিবের বর দ্বারা, মার্কন্ডেয় ঋষি বাল মুকুন্দের বট গাছের পাতায় তার পায়ের আঙুল চুষতে দেখেছিলেন, তখন থেকেই বট গাছের পূজা করা হয়।  বটগাছের পুজো করলে ঘরে সুখ শান্তি আসে, ধনলক্ষ্মীরও অধিবাস হয়।

 

 বট সাবিত্রী উপবাস উপাসনার উপকরণ-


বট সাবিত্রী উপবাসের উপাসনার সামগ্রীর মধ্যে রয়েছে সাবিত্রী-সত্যবানের মূর্তি, ধূপ, প্রদীপ, ঘি, বাঁশের পাখা, লাল কলব, মৌচাক, কাঁচা তুলা, ছোলা (ভেজানো), বটফল, জলভর্তি কলস ইত্যাদি।


দেবগুরু বৃহস্পতি ২০২৩ সাল পর্যন্ত তার প্রিয় রাশিতে থাকবেন, এই ৩টি রাশির জাতক জাতিকা হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা রয়েছে


 বট সাবিত্রী ব্রত পূজা পদ্ধতি-


 এই দিন সকালে ঘর পরিষ্কার করার পর, প্রতিদিনের কাজ থেকে অবসর নিয়ে গোসল করুন।

 এর পর সারা ঘরে পবিত্র জল ছিটিয়ে দিন।

 একটি বাঁশের ঝুড়িতে সাতটি দানা ভরে ব্রহ্মার মূর্তি স্থাপন করুন।

 ব্রহ্মার বাম দিকে সাবিত্রীর মূর্তি স্থাপন করুন।

 একইভাবে, দ্বিতীয় ঝুড়িতে সত্যবান ও সাবিত্রীর মূর্তি স্থাপন করুন।  এই ঝুড়িগুলো বটগাছের নিচে নিয়ে রাখো।

 এর পর ব্রহ্মা ও সাবিত্রীর পূজা।

 এখন সাবিত্রী ও সত্যবানের পূজা করার সময় জ্যৈষ্ঠের মূলে জল দিন।

 পূজায় জল, মলি, রোলি, কাঁচা তুলা, ভিজানো ছোলা, ফুল ও ধূপ ব্যবহার করুন।

 বটগাছকে পানি দিয়ে সেচ দেওয়ার পর তার কাণ্ডের চারপাশে একটি কাঁচা সুতো বেঁধে তিনবার প্রদক্ষিণ করুন।

 বট সাবিত্রীর বড্ড পাতার অলংকার পরার গল্প শুনুন।

 - নগদ টাকা রেখে ভেজানো ছোলার বীজ বের করে শাশুড়ির পা ছুঁয়ে শাশুড়ির আশীর্বাদ পান।

 শাশুড়ি না থাকলে বায়না বানিয়ে তার কাছে নিয়ে আসুন।

 পূজা শেষে বাঁশের পাত্রে রেখে ব্রাহ্মণদের বস্ত্র ও ফলমূল দান করুন।

 এই উপবাসে সাবিত্রী-সত্যবানের পুণ্য কাহিনী শুনতে ভুলবেন না।  পূজা করার সময় এই গল্পটি অন্যদের বলুন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad