বাসে যাত্রী তোলা নিয়ে বচসা, বাড়ি ফেরার পথে বৃদ্ধকে পিটিয়ে খুন! এলাকায় চাঞ্চল্য - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Sunday, 5 June 2022

বাসে যাত্রী তোলা নিয়ে বচসা, বাড়ি ফেরার পথে বৃদ্ধকে পিটিয়ে খুন! এলাকায় চাঞ্চল্য


বাঁকুড়া: বাসে ওঠা নিয়ে কনডাক্টরের সঙ্গে বচসা, বাড়ি ফেরার পথে বৃদ্ধকে পিটিয়ে খুনের অভিযোগ উঠল তিন দুষ্কৃতীর বিরুদ্ধে। যদিও বাস কন্ডাক্টররের সঙ্গে বচসার জেরে এই ঘটনা কিনা স্পষ্ট নয়। ঘটনা ঘিরে ব্যাপক চাঞ্চল্য বাঁকুড়ার মেজিয়ায়। মৃতের নাম সরফুল খান, বয়স ৬০ বছর। 


স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, মেজিয়া থানার অন্তর্গত লালবাজার গ্রামের বাসিন্দা, সরফুল খানের পরিবার রবিবার সকালে পুরুলিয়া যাওয়ার উদ্দেশ্যে একটি  বেসরকারি বাসে ওঠেন। সেই বাসে ওঠার সময় সরফুল খানের মেয়ে তাড়াতাড়ি উঠে গেলেও, স্ত্রী উঠতে পারেনি। এই নিয়ে বাসের কনডাক্টরের সাথে সরিফুল খানের বচসা বাঁধে। এরপর স্ত্রী এবং মেয়েকে বাসে তুলে সরফুল খান বাড়ি ফেরার পথে বাঁধে বিপত্তি। 


পরিবারে অভিযোগ, সেই সময় তার ওপর চড়াও হয় হাবিবুল শেখ, শামিম শেখ,সেব্রাতি শেখ। সেখানে প্রথমে ধস্তাধস্তি শুরু হয় দুই পক্ষের মধ্যে পরে তিনজন মিলে সরফুলকে মারধর করে। ঘটনা স্থলেই লুটিয়ে মৃত্যুর কোলে ঢোলে পড়েন সরফুল খান। এই দুই পক্ষই  একই পাড়ার বাসিন্দা বলে জানা গেছে। তবে ঠিক কি কারনে এই হত্যা; পুরোনো শত্রুতা, নাকি জমি বিবাদ? তা এখনও অজানা। 


তবে, এলাকাবাসীর অভিযোগ, অভিযুক্ত ওই তিন ব্যাক্তির সাথে কেউ কখনই পেরে ওঠে না। অভিযুক্তদের খোঁজে পুলিশ তল্লাশি শুরু করলেও তারা পলাতক। কারও এখনও কোনও খোঁজ পাওয়া যায়নি। পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখছে মেজিয়া থানার পুলিশ।


পুলিশ দেহটি ময়নাতদন্তের জন্য বাঁকুড়া সন্মিলনী মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠায়। আর এটা আদৌও খুন, নাকি নিছকই কোনও দুর্ঘটনা, তা খতিয়ে দেখছে মেজিয়া থানার পুলিশ।



No comments:

Post a Comment

Post Top Ad