আগ্নেয়াস্ত্র হাতে তৃণমূল কর্মী! ভিডিও ভাইরাল হতেই কড়া পদক্ষেপ - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Friday, 3 June 2022

আগ্নেয়াস্ত্র হাতে তৃণমূল কর্মী! ভিডিও ভাইরাল হতেই কড়া পদক্ষেপ


মালদা: আগ্নেয়াস্ত্র হাতে তৃণমূল কর্মীর ভিডিও ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়, ঘটনাস্থল সেই হরিশ্চন্দ্রপুর। ভাইরাল ভিডিও দেখেই কড়া পদক্ষেপ, অস্ত্রসহ গ্রেফতার তৃণমূল কর্মী। ঘটনা ঘিরে তুঙ্গে তৃণমূল-বিজেপি তরজা। 


আর এক বছরও বাকি নেই পঞ্চায়েত ভোটের। ইতিমধ্যেই পঞ্চায়েত ভোট নিয়ে চড়ছে রাজনৈতিক পারদ। বিরোধীরা অভিযোগ তুলছে, শাসকদল সন্ত্রাসের চেষ্টা করবে। আর তার মাঝেই আগ্নেয়াস্ত্র হাতে শাসক দলের কর্মীর ভিডিও ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়। মুহুর্তের মধ্যে ভাইরাল সেই ভিডিও। ভিডিও ভাইরাল হতেই গ্রেফতার তৃণমূল কর্মী।ধৃতের নাম মোহাম্মদ সহিদুল করিম(৩২)। তার কাছ থেকে সেভেনএমএম পিস্তল উদ্ধার করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানার সাব-ইন্সপেক্টর বিকাশ হালদার। মালদহের হরিশ্চন্দ্রপুর ভালুকা গ্রাম পঞ্চায়েতের বরনাহি গ্রাম থেকে তৃণমূল কর্মীকে গ্রেফতার করেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানার পুলিশ। 


এই ঘটনায় খোঁচা দিতে ছাড়েনি বিজেপি। পাল্টা তৃণমূল ব্লক সভাপতিরর সাফাই, 'অন্যায়কে দল প্রশ্রয় দেয় না, পুলিশ পুলিশের কাজ করবে, আইন আইনের পথে চলবে।


হরিশ্চন্দ্রপুর থানার আইসি সঞ্জয় কুমার দাস জানান, 'সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছিল হাতে বন্দুক নেওয়া ভিডিও। আমাদের কাছে সেই ভিডিও আসতেই সঙ্গে সঙ্গে অভিযান চালিয়ে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করা হয়েছে ও সেভেনএমএম পিস্তল উদ্ধার হয়েছে। গোটা ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।'


উল্লেখ্য, বেশ কিছুদিন আগেই  আগ্নেয়াস্ত্র হাতে এক তৃণমূল নেতার ছবি ভাইরাল হতে দেখা গিয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়ায়, যা নিয়ে শুরু হয়েছিল রাজনৈতিক তরজা। কটাক্ষ করেছিল খোদ বিজেপি সাংসদ। ফের একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি। স্বাভাবিক ভাবেই অস্বস্তিতে তৃণমূল নেতৃত্ব। 

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad