ভয়াবহ! ছেলেকে দু' টুকরো করে কেটে ঈশ্বরের কাছে ক্ষমা চাইল ব্যক্তি - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Monday, 25 July 2022

ভয়াবহ! ছেলেকে দু' টুকরো করে কেটে ঈশ্বরের কাছে ক্ষমা চাইল ব্যক্তি


ছেলেকে কেটে দু টুকরো করে তার দেহ ভিন্ন ভিন্ন জায়গায় লুকিয়ে রাখার অভিযোগ উঠল বাবার বিরুদ্ধে। শিহরণ জাগানো এই ঘটনাটি ঘটেছে গুজরাটের আহমেদাবাদে। নিজের ছেলেকে খুনের অভিযোগে নীলেশ যোশী নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।


আহমেদাবাদ ক্রাইম ব্রাঞ্চের এক আধিকারিক বলেন, “২১ বছর বয়সী স্বয়ং, প্রায় ছয় বছর ধরে মাদক ও অ্যালকোহল আসক্ত ছিলেন এবং তাঁর বাবাকে মেরে ফেলার হুমকি দিতেন। ১৮ জুলাই সকালে, যখন স্বয়ম তার বাবার সাথে আবার ঝগড়া শুরু করে, তখন যোশী তাকে বলে যে, সে পুলিশকে ফোন করে তাকে জেলে পুরবে। তখন ছেলে, যোশী এবং পুলিশকেও খুন করবে, হুমকি দেয় বলে অভিযোগ। এরপর বাড়ি ভাঙচুর শুরু করে ও বাবাকে মারধর শুরু করে।


পুলিশ জানিয়েছে, "যোশী বেশি সহ্য করতে না পেরে তাকে খুন করেছে। খুনের পর, ধারণা হয়েছিল, মৃতদেহ টুকরো টুকরো করে ফেলার যাতে তার কোনও চিহ্ন না থাকে।' তাই ছেলের কাপড়-চোপড় সহ সবকিছু সরিয়ে ফেলে। পুলিশ জানিয়েছে, ছেলেকে খুনের পর নীলেশ তার স্কুটারে কালুপুরের একটি মন্দিরে গিয়ে ঈশ্বরের কাছে ক্ষমা চেয়েছিলেন। অভিযুক্ত নীলেশ যোশি নেপালে যাওয়ার সময় ধরা পড়ে এবং শনিবার রাতে অপরাধ শাখার কাছে হস্তান্তর করা হয়।


আধিকারিক বলেন, ২০ ও ২১ জুলাই নগরীর দুটি স্থান থেকে একটি কাটা মাথা এবং হাত ও পা উদ্ধার করা হয়। তদন্তের পর দেখা যায় যে এগুলো একই ব্যক্তির। প্রযুক্তিগত এবং মানব গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে, ক্রাইম ব্রাঞ্চের আধিকারিকরা এই মামলায় যোশীকে সন্দেহভাজন হিসাবে বিবেচনা করেন। 


আধিকারিক বলেন, যোশী ২২ জুলাই আহমেদাবাদ থেকে সুরাটের একটি বাসে উঠেছিল এবং পরে নেপালে পালানোর চেষ্টায় গোরখপুরের জন্য একটি ট্রেনে ওঠে। অপরাধ শাখার শেয়ার করা তথ্যের ভিত্তিতে অভিযুক্তকে রাজস্থানের গঙ্গানগর রেলওয়ে স্টেশনে রেলওয়ে সুরক্ষা বাহিনী (আরপিএফ) আটক করেছে। জিজ্ঞাসাবাদে, যোশী জানায়, সে তার ছেলেকে খুন করেছে। কারণ সে মাদক ও মদ্যপানে আসক্ত ছিল এবং আগ্রাসী আচরণ করত, এমনকি তার সাথেও সব সময় ঝগড়া করত।


পুলিশ ভারতীয় দণ্ডবিধির (আইপিসি) ধারা ৩০২(খুন)- এর অধীনে অভিযুক্তর বিরুদ্ধে এফআইআর নথিভুক্ত করার প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad