বিজেপি বিরোধী শিবিরে বিরাট ভাঙন - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Friday, 22 July 2022

বিজেপি বিরোধী শিবিরে বিরাট ভাঙন


নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহ নেতৃত্বাধীন বিজেপির বিরুদ্ধে বিরোধীদের মানসিকতায় ঐক্য সংহতি নেই। বারংবার এটা প্রমাণিত হওয়ায় বলা যেতে পারে এই বিরোধীদের জোট সরকার দেশের জন্য কতটা অশুভ, ক্ষতিকর। বিরোধীদের নিয়ে প্রথম পর্বের আলোচনা দেশের তিন নম্বর বড় দল তৃণমূলের সাথে বাকিদের বিরোধ। 


বৃহস্পতিবার টিএমসি সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন যে, দল উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট দান থেকে বিরত থাকবে।


আসন্ন উপ-রাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে বিরত থাকার টিএমসির সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়া জানিয়ে, জম্মু কাশ্মীর ন্যাশনাল কনফারেন্সের সহ-সভাপতি ওমর আবদুল্লাহ বিরোধী ঐক্যকে একটি 'কাইমেরা' বলে অভিহিত করেছেন, যার অর্থ 'ভ্রম বা অর্জন করা অসম্ভব'। ওমর আবদুল্লাহ উপ-রাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে সুবিধাজনকভাবে বিরত থাকার টিএমসিকে আরও কটাক্ষ করেছেন এবং উল্লেখ করেছেন যে রাজনৈতিক দলগুলি 'শেষ পর্যন্ত তাদের নিজের স্বার্থে যা করে'।


ওমর আবদুল্লাহ একটি টুইট বার্তায় লিখেছেন, "বিরোধী ঐক্য কিছুটা কাহিনীর মতো। শেষ পর্যন্ত রাজনৈতিক দলগুলো তাদের নিজেদের স্বার্থে যা মনে হবে তা করবে এবং সেটা যেমন হওয়া উচিৎ। ভূতের পিছনে ছুটে সময় নষ্ট করার চেয়ে দলের জন্য সময় ব্যয় করুন।” 


 উল্লেখযোগ্যভাবে, টিএমসি সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বৃহস্পতিবার উল্লেখ করেছেন যে, দল উপরাষ্ট্রপতি নির্বাচন থেকে বিরত থাকবে কারণ এনডিএ এর সহ-রাষ্ট্রপতি প্রার্থী জগদীপ ধানখারকে সমর্থন করার কোনও প্রশ্নই নেই এবং বিরোধীদের যৌথ প্রার্থী মার্গারেট আলভার নাম টিএমসির কোনও সিনিয়র নেতার সাথে পরামর্শ ছাড়াই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল।


 তৃণমূল উপরাষ্ট্রপতি পদের জন্য মার্গারেট আলভাকে সমর্থন করবে না- অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের এই ঘোষণা বিরোধী ঐক্যে একটি বড় ধাক্কা বলে মনে করছেন বিশ্লেষকরা। 


কংগ্রেসের অধীর রঞ্জন চৌধুরী আলভাকে সমর্থন না করার জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নিন্দা করেছেন।


টিএমসি নেতা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় সংবাদ মাধ্যমকে বলেছেন, "একজন এনডিএ (ভিপি) প্রার্থীকে সমর্থন করার কথাও উঠে না। কারণ যেভাবে বিরোধী প্রার্থীর সিদ্ধান্ত নিতে উভয় হাউসে ৩৫ জন সাংসদ রয়েছে এমন একটি দলের সাথে সঠিক পরামর্শ ও আলোচনা করা হয়নি। তাই আমরা সর্বসম্মতভাবে ভোট প্রক্রিয়া থেকে বিরত থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।"


অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় আরও উল্লেখ করেছেন,  "আমাদের ৮৫% এমপিরা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে, আমাদের ভোট দেওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে।"


এখানে উল্লেখ করা গুরুত্বপূর্ণ যে, বিজেপি-নেতৃত্বাধীন এনডিএ-এর সহ-রাষ্ট্রপতি প্রার্থীকে সমর্থন ঘোষণা করছে বিজু জনতা দল (বিজেডি), এআইএডিএমকে এবং ওয়াইএসআরসিপি ইতিমধ্যেই এনডিএ-র প্রার্থী জগদীপ ধনকারকে সমর্থন ঘোষণা করেছে। যদিও এই দলগুলি এনডিএ-র শরীক দল নয়।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad