পরেশকে অপসারণের দাবীতে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 3 August 2022

পরেশকে অপসারণের দাবীতে হাইকোর্টে জনস্বার্থ মামলা


শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারিতে প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও তাঁর ঘনিষ্ঠ সহযোগী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে গ্রেফতারের পর, এবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আরেক মন্ত্রী পরেশ চন্দ্র অধিকারীর মাথায়ও ঝুলছে বিপদের খড়গ। পরেশ অধিকারীও এই মামলায় অভিযুক্ত। তাই তাঁকে মন্ত্রীর পদ থেকে অপসারণের দাবীতে কলকাতা হাইকোর্টে একটি জনস্বার্থ মামলা দায়ের করা হয়েছে। বিজেপি নেতা তথা অ্যাডভোকেট প্রদীপ্ত অর্জুন হাইকোর্টে এই জনস্বার্থ মামলা দায়ের করেছেন।  শুক্রবার এই মামলার শুনানির সম্ভাবনা। 


অন্যদিকে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারের জন্য এটিকে লজ্জাজনক বলে অভিহিত করেছেন বাংলায় বিজেপির কেন্দ্রীয় সহ-ইনচার্জ অমিত মালব্য। এই অস্বস্তির মাঝেই আজ বুধবার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মন্ত্রিসভায় রদবদল হতে চলেছে। এই পর্বে মন্ত্রী পদ থেকে পরেশ অধিকারীর ছুটি হতে পারে বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক মহলের একাংশ।


উল্লেখ্য, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সোমবার ঘোষণা করেছিলেন যে বুধবার বিকেল ৪টায় মন্ত্রিসভায় রদবদল হবে। যেহেতু পরেশ অধিকারী ইতিমধ্যেই শিক্ষক নিয়োগ মামলায় অভিযুক্ত এবং আদালতের নির্দেশে ইতিমধ্যেই চাকরি খুইয়েছেন পরেশ কন্যা। সেই কারণেই পরেশ যে ভালোভাবেই বিপাকে পড়েছেন, আর এজন্যই ছিনিয়ে নেওয়া হতে পারে তাঁর মন্ত্রীত্বও, সে নিয়েই জোর চর্চা রাজনৈতিক অঙ্গনে। 


এই দুর্নীতি ইস্যুতে বঙ্গ বিজেপির কেন্দ্রীয় কো-ইন-চার্জ অমিত মালব্য ট্যুইট করেছেন, “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্য আরও বিব্রতকর অবস্থায়, তদন্ত চলমান না হওয়া পর্যন্ত #SSCScam-এর সরাসরি সুবিধাভোগী, MoS Education, পরেশ অধিকারীকে অপসারণের নির্দেশনা চেয়ে কলকাতা হাইকোর্টে একটি পিআইএল দায়ের করা হয়েছে। কপি WB সরকারে পরিবেশন করা হবে। শুক্রবারের জন্য তালিকাভুক্ত…"


প্রসঙ্গত, নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় পরেশ অধিকারীকেও সিবিআই তিনবার জিজ্ঞাসাবাদ করেছিল এবং তাঁর মেয়ে অঙ্কিতা অধিকারীকে শিক্ষিকির পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। 

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad