মমতার মন্ত্রীসভা নিয়ে বিস্ফোরক প্রসূন - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Sunday, 18 September 2022

মমতার মন্ত্রীসভা নিয়ে বিস্ফোরক প্রসূন


'মদন মিত্র ছাড়া ক্রীড়া মন্ত্রী কাউকে মানি না, মানতে পারি না', বিস্ফোরক প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়। শনিবার বিশ্বকর্মা পুজোর অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে এমন বিস্ফোরক মন্তব্য করেন হাওড়া সদরের শাসক দলের সাংসদ প্রসূন বন্দোপাধ্যায়। 'তৃণমূলের শেষের কটা দিন আর বাকি আছে', কটাক্ষ বিজেপির। 


মদন মিত্রকে পাশে রেখে তিনি বলেন, পশ্চিমবঙ্গে তৃণমূলের যদি কেউ ক্রীড়া মন্ত্রী হয়ে থাকে সেটা একমাত্র মদন মিত্রই। এছাড়া অন্য কাউকে ক্রীড়া মন্ত্রী বলে তিনি মানেন না সে যেই হোক না কেন। তিনি আরও বলেন, যখন দিদির পাশে দু একজন থাকতো তাঁর মধ্যে মদন মিত্র অন্যতম। এখন অনেকেই দিদির পাশে আছেন বলেও কটাক্ষ করেন প্রসূন। 



তাঁর দাবী, খেলা সংক্রান্ত বহু সমস্যা তিনি স্বচ্ছতার সঙ্গে সমাধান করেছেন। তাঁর সময়ে ক্রীড়া দফতরে বহু পরিকল্পনা রূপায়িত হয়েছে যথেষ্ট স্বচ্ছতার সঙ্গেই। গভীর রাত অবধি কোনও সমস্যা হলেও মদন মিত্র সময় দিতেন। ময়দানের অনেক ছোট-ছোট খেলোয়াড়দের তিনি অর্থ সাহায্য করেন। 


প্রসূনের কথায়, অনেকেই তাঁকে নিয়ে অনেক ধরণের মজা করেন, যদিও মদন মিত্র যথেষ্ট ভদ্র, শিক্ষিত ও মার্জিত মানুষ। যাকে দেখে প্রসূন বন্দোপাধ্যায় গর্ব অনুভব করেন। আর এই ধরণের মানুষ তাঁদের মন্ত্রীসভাতে ঠাঁই পাই না, এটা ভাবতেই তিনি অবাক হয়ে যান।


এদিকে প্রসূনের মন্তব্যকে কটাক্ষ করে বিজেপির রাজ্য সম্পাদক উমেশ রাই। তিনি কটাক্ষ করে বলেন, আসলে তৃণমূলের শেষের কটা দিন আর বাকি আছে। আর হাওড়ার সাংসদের মতো লোকেরা এইসব কথাবার্তা বলে দলকে আরও অপদস্ত করে নিজের রাস্তা পরিষ্কার করছেন। 


বিজেপি নেতার পাল্টা দাবী, 'উনি ৭ বছরের বেশি সময় ধরে হাওড়ার সাংসদ আছেন, মুখ্যমন্ত্রীরা খুব কাছের মানুষ হয়েও কেন এই পরামর্শ তিনি দেননি।'


তবে, প্রসূন বন্দোপাধ্যায়ের বক্তব্যের বিষয়ে শাসক দলের তরফে কোনও মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad