চশমা আবিস্কারের ইতিহাস - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 16 November 2022

চশমা আবিস্কারের ইতিহাস

 




সূর্য থেকে রক্ষাকারী চশমা বা সানগ্লাস, এমনি এমনি তৈরী হয়ে যায়নি। এর পিছনেও আছে মজার ইতিহাস।  চলুন দেখে নেওয়া যাক সানগ্লাসের ইতিহাস-

সানগ্লাস আবিষ্কার নিয়ে অনেক বিভ্রান্তি রয়েছে।  ১২৮২ থেকে ১২৮৬ সালের মধ্যে ১৩ শতাব্দীতে আবিষ্কৃত হয়েছিল বলে জানা যায়।

এনসাইক্লোপিডিয়া অনুসারে, চশমার আবিষ্কারক হিসেবে ইতালির আলেসান্দ্রো ডি স্পিনা এবং সালভিনো ডিলি আরমির নাম বিখ্যাত।  তবুও বেশিরভাগ জায়গায়, আলেসান্দ্রো ডি স্পিনাকে চশমার জনক বলা হয়।

সানগ্লাস ১২ শতকে চীনে প্রথম তৈরি হয়েছিল।  এই রঙিন চশমাগুলি এক ধরণের স্বচ্ছ পাথর  তৈরি করা হয়েছিল, যাতে সূর্যের রশ্মিকে আটকাতে পারে।

আগে শুধুমাত্র ধনী ব্যক্তিরাই সানগ্লাস পড়তে পারত।এবং বেশিরভাগই চীনা বিচারকরা ব্যবহার করতেন, যাতে অন্যদের সঙ্গে কথা বলার সময় তাদের অনুভূতি কারও কাছে দৃশ্যমান না হয়।  তারপর ১৪৩০ সালের দিকে, শুধুমাত্র চোখের চশমাটি গাঢ় রঙের তৈরি করা হয় এবং চীন থেকে ইতালিতে নিয়ে আসা হয়।

১৮ শতকে, জেমস আইসকফ চশমার লেন্সগুলিকে রঙিন করেন। যদিও এটি সূর্য থেকে রক্ষা করার জন্য তৈরি করা হয়নি, বরং তারা এর মাধ্যমে দৃষ্টিশক্তি নিরাময়ের দাবি করে আসছে। তারা লেন্সে নীল এবং সবুজ আভা দেয়।  ২০ শতকের শুরুতে, আধুনিক চশমা চালু করা হয়, যা কালো রঙের হয়।

হলিউড তারকারা সেগুলো পরতে শুরু করেন।  ১৯২৯ সালে , স্যাম ফস্টারের কোম্পানি প্রচুর পরিমাণে চশমা উৎপাদন শুরু করে।  সেনাবাহিনী এবং বিমানবাহিনীর জন্য বিশেষ সানগ্লাসও তৈরী করা হয়, যার মধ্যে হলুদ রঙ চালু করা হয়েছিল।

১৯৬০-৭০এর দশকে, সানগ্লাসের ক্রেজ পুরো বিশ্বে ছড়িয়ে পরে।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad