'চাই না এটা সারদা-নারদা হোক', নিয়োগ দুর্নীতি তদন্তের দায়িত্বে নতুন সিট প্রধান - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Friday, 18 November 2022

'চাই না এটা সারদা-নারদা হোক', নিয়োগ দুর্নীতি তদন্তের দায়িত্বে নতুন সিট প্রধান


রাজ্যে শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারি মামলায় সিবিআই তদন্তের অগ্রগতি নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে কলকাতা হাইকোর্ট। সেইসঙ্গেই হাইকোর্টে বলেছে যে, এটি নারদা -সারদা তদন্তের মতো না হয়ে যায়। বর্তমানে সিবিআই ডিআইজি অশ্বিন সেনভিকে এখন রাজ্যে নিয়োগ কেলেঙ্কারির মামলার তদন্তের জন্য গঠিত সিট-এর প্রধান হিসাবে নিযুক্ত করা হয়েছে। নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থার বিশেষ তদন্তকারী দলের (SIT) নিয়োগে পরিবর্তনের নির্দেশ দিয়েছেন কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়।


শুক্রবার কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় সিট প্রধান হিসাবে তাঁর নিয়োগের ঘোষণা দেন। এই নিয়োগ দুর্নীতি মামলার তদন্তের জন্য আগামী সাত দিনের মধ্যে তাকে কলকাতায় আসার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এদিন কলকাতা, রাঁচি ও চণ্ডীগড়ের তিন অফিসারের নাম জানিয়েছিল সিবিআই।


শুক্রবার হাইকোর্টে অখিলেশ সিংয়ের জায়গায় তিন সিবিআই অফিসারকে মনোনীত করেছে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা। এনারা সবাই ডিআইজি পদমর্যাদার আধিকারিক। এনারা হলেন সুধাংশু খাদে, মাইকেল রাজ এবং অশ্বিন সেনভি। এই তিনজনের মধ্যে সুধাংশু খাদে বর্তমানে কলকাতার অন্য শাখায় রয়েছেন। মাইকেল রাজ বর্তমানে রাঁচিতে এবং অশ্বিন সেনভি বর্তমানে চণ্ডীগড়ে কাজ করছেন। এরপর বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় জানতে চান পঙ্কজ শ্রীবাস্তব এখন কোথায়? তাঁকে কি ফিরিয়ে আনা যাবে? বিচারপতিকে ১৫ মিনিটের মধ্যে এ বিষয়ে জানাতে বলা হয়। বিচারপতির আরও মন্তব্য করেন, "আমি চাই না এটা সারদা-নারদা হোক।"


বিচারপতির আদেশের পরে, সিবিআই আদালতকে জানায় যে, পঙ্কজ শ্রীবাস্তব বর্তমানে আইজি পদে উন্নীত হওয়ার পরে গাজিয়াবাদের সিবিআই অ্যাকাডেমিতে কর্মরত আছেন। এর পরেই বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় ডিআইজি অশ্বিন সেনভিকে শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তের জন্য SIT-এর প্রধান নিযুক্ত করেন। 


উল্লেখ্য, বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় এদিন আদালতে যে পঙ্কজ শ্রীবাস্তবের নাম নিয়েছিলেন, এর আগে তিনি কলকাতায় কর্মরত ছিলেন। কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় যখন সিবিআইকে দুর্নীতির মামলার তদন্তের দায়িত্ব দেন, তখন পঙ্কজ শ্রীবাস্তব কলকাতায় সিবিআই-এর দুর্নীতি দমন শাখায় কর্মরত ছিলেন। 


প্রসঙ্গত, হাইকোর্টের নির্দেশে, সিবিআই নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় তদন্ত করছে এবং এই মামলায় প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় সহ অনেক প্রাক্তন আধিকারিককে গ্রেফতার করা হয়েছে।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad