হাসপাতালে রোগীর বিছানায় বিস্কুট খাচ্ছে কুকুর, চত্ত্বরে ঘোরাফেরা করছে গরু! চুপ প্রশাসন - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 4 January 2023

হাসপাতালে রোগীর বিছানায় বিস্কুট খাচ্ছে কুকুর, চত্ত্বরে ঘোরাফেরা করছে গরু! চুপ প্রশাসন



একদিকে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ এবং ডেপুটি সিএম ব্রিজেশ পাঠক রাজ্যের স্বাস্থ্য পরিষেবার উন্নতিতে নিযুক্ত রয়েছেন।  অন্যদিকে, এমন পরিস্থিতিতে বান্দা জেলা হাসপাতাল কোনও না কোনও বিষয়ে শিরোনামে থাকে।  এখানে স্বাস্থ্যকর্মীদের অবহেলা স্পষ্ট।  উন্নত চিকিৎসার আশা নিয়ে পৌঁছানো রোগীরাও হতাশ হয়ে পড়ে।  বান্দা জেলা হাসপাতাল থেকে চরম অবহেলার ঘটনা সামনে এসেছে।  জেলা হাসপাতালের ট্রমা সেন্টার ওয়ার্ডের ভিতরে কুকুর ও বিপথগামী গরুকে ঘোরাফেরা করতে দেখা গেছে, যার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রমশ ভাইরাল হচ্ছে।



 ট্রমা সেন্টারের ভেতরে রোগীর বিছানায় একটি কুকুরকে বিস্কুট খেতে দেখা গেছে।  একই সাথে একটি বিপথগামী গরুকেও রোগী ও পরিচারিকাদের মাঝে ঘুরতে দেখা গেছে, বড় বিষয় হল কোনও স্বাস্থ্যকর্মীকে এখান থেকে তাড়িয়ে দিতে দেখা যায়নি।  তবে এ ব্যাপারে জেলা হাসপাতালের সিএমএস এর সাথে কথা বলা হলে তিনি বলেন, বিষয়টি তার নজরে এসেছে এবং দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।



 সোশ্যাল মিডিয়ায় কুকুর ও বিপথগামী গরুর ঘোরাঘুরির ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে, এটা এখানে নতুন নয়।  এর আগেও এখান থেকে একই ধরনের ছবি সামনে এসেছে।  এ বিষয়ে ঊর্ধ্বতন আধিকারিকদের কাছে অভিযোগ জানানো হলেও দায়ীদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি।  এখানে রোগী ও পরিচারিকাদের অনেক সমস্যায় পড়তে হলেও এ সমস্যা থেকে মানুষ মুক্তি পাবে তা এই মুহূর্তে দৃশ্যমান নয়।



জেলা হাসপাতাল থেকে কুকুর ও গরুর ঘোরাঘুরির ভিডিও প্রসঙ্গে সমাজসেবক এএস নোমানী বলেন, "ভাইরাল হওয়া ভিডিওটি আমরাও দেখেছি যাতে হাসপাতালের ভেতরে কুকুর ও গরুকে ঘোরাফেরা করতে দেখা যায়।  এই কুকুর যদি রোগীকে আক্রমণ করে তাহলে এর দায় কে নেবে।  বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে নিয়ে আমরা প্রথমে প্রশাসনের কাছে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবী জানাব এবং এ বিষয়ে কোনও ব্যবস্থা না নিলে আমরা সরকারের ওপরে বসা ব্যক্তিদের কাছে বিষয়টি তুলে ধরব।"



 একই সময়ে, জেলা হাসপাতালের সিএমএস ডাঃ এস এন মিশ্রের সাথে কথা বলা হলে তিনি বলেছিলেন যে "এই ভিডিওটি আমার নজরে এসেছে এবং কীভাবে বিপথগামী প্রাণী এখানে পৌঁছেছে তা আমি তদন্ত করছি।  এতে যারা দোষী, তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।"

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad