করোনা ভালোবাসা কেড়ে নিলেও ফিরে পেল এক অনন্য উপায়ে - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 4 January 2023

করোনা ভালোবাসা কেড়ে নিলেও ফিরে পেল এক অনন্য উপায়ে

 






বলা হয় ভালোবাসার কখনো মৃত্যু হয় না।  দম্পতি একে অপরের কাছ থেকে দূরে চলে গেলেও, তারা যদি একে অপরকে সত্যিকারের ভালবাসে তবে অবশ্যই তাদের একে অপরের প্রতি ভালবাসা কখনই শেষ হয় না। যদিও একজন জীবনসঙ্গী হারানো কষ্ট পায়,তাহলে তা পূরণ করা অসম্ভব, কিন্তু আজকাল এমন একজন ব্যক্তির সম্পর্কে অনেক কথা বলা হচ্ছে যিনি তার মৃত্যুর পরেও তার জীবনসঙ্গীকে কেবল তার হৃদয়ে বাঁচিয়ে রেখেছেন না বরং তাকে পেয়েছেনও।  




হ্যাঁ, এই জিনিসটি আপনার কাছে আজব মনে হলেও এটাই সত্য, যা আপনাকে অনেক অবাক করবে।  সংবাদ মাধ্যম অনুযায়ী, এই ব্যক্তির নাম তাপস শান্ডিল্য এবং তিনি কলকাতার বাসিন্দা।  তিনি তার স্ত্রী ইন্দ্রানীকে এতটাই ভালোবাসেন যে তার মৃত্যুর পর তিনি তার মতো দেখতে একটি মূর্তি তৈরি করেছেন এবং আরও আশ্চর্যের বিষয় হল এই মূর্তিটি তৈরি করতে তিনি লাখ লাখ টাকা খরচ করেছেন।




 তাপস শান্ডিল্যের ভিআইপি রোডের বাড়িটা আর তার স্ত্রীকে ছাড়া জনশূন্য মনে হয় না, বরং তার স্ত্রী তার সঙ্গে সারাক্ষণ বাড়িতেই থাকে।  কখনো তাকে তার প্রিয় দোলনায় বসে থাকতে দেখা যায় আবার কখনো তাপসকে তার চুল সাজাতে দেখা যায়।  এমনকি তাপস তার স্ত্রীর প্রতিমাকে তার পছন্দের সিল্কের শাড়িও পরিয়েছেন এবং তার গায়ে সোনার অলঙ্কারও পরিয়েছেন হয়েছে।  জানা গেছে, স্ত্রীর মতো এই জীবন-মূর্তি তৈরি করতে তিনি ব্যয় করেছেন প্রায় আড়াই লাখ টাকা।  




 তাপস, ৬৫, একজন অবসরপ্রাপ্ত কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মচারী।  করোনার দ্বিতীয় তরঙ্গে হঠাৎ তার স্ত্রী ইন্দ্রাণী মারা যান, এরপর তিনি সম্পূর্ণ একা হয়ে যান।  স্ত্রীর চলে যাওয়ার দুঃখ তিনি ভুলতে পারেননি।  এ সময় তার মাথায় স্ত্রীর সিলিকন মূর্তি বানানোর চিন্তা আসে।  তিনি শুধু ভাস্কর সুবিমল দাসকে নির্দেশ দিয়েছেন।  ভাস্কর তার স্ত্রীর একটি হুবহু মূর্তি তৈরি করার জন্য ৬ মাস ধরে কঠোর পরিশ্রম করে অবশেষে এটি প্রস্তুত করে।  এখন তাপস তার 'সিলিকন স্ট্যাচু' স্ত্রীর সঙ্গে বাকি জীবন সুখে কাটাচ্ছেন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad