স্ত্রীকে চুম্বন করায় স্বামীকে গণপিটুনি! - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Thursday, 23 June 2022

স্ত্রীকে চুম্বন করায় স্বামীকে গণপিটুনি!

 


অযোধ্যার সরযূ নদীতে স্নান করার সময় স্বামী তার স্ত্রীকে চুম্বন করে। তারপরই পড়ে গেল শোরগোল। সরযূ নদীর ঘাটে স্বামীর এই কর্মকাণ্ডে আশপাশের লোকজন ক্ষুব্ধ হয়ে আপত্তি জানায়।  শুধু তাই নয়, লোকজন ওই তাকে ঘিরে ধরে মারধর করে। স্বামীকে ছেড়ে দেওয়ার জন্য তার স্ত্রী কাঁদতে থাকে। ঘটনাটি মঙ্গলবারের।  যার কিছু ভিডিও বুধবার ভাইরাল হয়।  একটি ভিডিওতে স্বামীকে তার স্ত্রীকে চুমু খেতে দেখা যাচ্ছে এবং অন্যটিতে তাকে মারধর করা হচ্ছে।




 প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার অযোধ্যায় সরযূ নদীতে স্নান করতে গিয়ে স্ত্রীকে চুমু খেয়েছিলেন এক ব্যক্তি।  তা দেখে আশপাশের লোকজন আপত্তি জানায়।  লোকজনের অভিযোগ, ওই দম্পতি একসঙ্গে স্নান করে অশ্লীলতা ছড়াচ্ছেন।  জনগণ আপত্তি জানিয়ে বলেন, পাবলিক প্লেসে এ ধরনের অশ্লীলতা করা উচিৎ নয়।  বিষয়টি এখানেই থেমে থাকেনি।  এরপর ৩০ বছরের ওই ব্যক্তিকে মারধর করে লোকজন।  এতে তিনি  আহত হন। তার স্ত্রী স্বামীকে ছেড়ে দেওয়ার আবেদন জানাতে থাকে এবং অন্যরা ঘটনার ভিডিও বানাতে থাকে।  বুধবার এই দুটি ঘটনার ভিডিও ভাইরাল হয়।



পুলিশ জানিয়েছে, এ ঘটনায় এখনও কোনও অভিযোগ আসেনি।  তবে, পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করছে এবং দম্পতি এবং হামলাকারী অভিযুক্ত দুষ্কৃতীদের খুঁজে বের করার চেষ্টা করছে।  এখানে সাধুরা এ ব্যাপারে তাদের ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন এবং ব্যক্তিকে মারধর করাকে সায় দিয়েছেন।  শ্রীরামবল্লভকুঞ্জের প্রধান স্বামী রাজকুমার দাস বলেন, "পাবলিক প্লেসে এমন অশ্লীল কাজ করা ঠিক নয়।  তীর্থস্থানে ধর্ম ও সাজসজ্জা মেনে চলতে হবে।  প্রকাশ্য স্থানে এ ধরনের অশ্লীলতা ঘটলে সমাজের মানুষের কাছে ভুল বার্তা যাবে।"


 একইসঙ্গে হনুমত নিবাসের মহন্ত ডাঃ মিথিলেশ নন্দিনী শরণ বলেন, "মানুষ পিটিয়ে ভালো করেছে।"  আসলে, গ্রীষ্মের সময়, সরযূ উপকূলে পর্যটকদের ভিড় থাকে।  এমতাবস্থায় অযোধ্যাবাসীর পাশাপাশি বাইরে থেকেও বহু মানুষ রামনগরী পৌঁছে ডুব দেন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad