আর্থিক সংকটের মুখে পাকিস্তান! মানুষকে চা পান কমানোর দাবী সরকারের - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Wednesday, 15 June 2022

আর্থিক সংকটের মুখে পাকিস্তান! মানুষকে চা পান কমানোর দাবী সরকারের

 


আর্থিক সংকটের মুখে থাকা পাকিস্তানের অবস্থা বিশ্বের কাছে গোপন নয়।  পাকিস্তান সরকার এখন দেশের নাগরিকদের কাছে টাকার ঘাটতি কাটাতে চা পান কমানোর আবেদন জানিয়েছে।  পাকিস্তানের নাগরিকদের কাছে এই অদ্ভুত আবেদন পাকিস্তানের পরিকল্পনা ও উন্নয়ন মন্ত্রী আহসান ইকবালের।  আহসান ইকবাল পাকিস্তানি নাগরিকদের চা পান কমানোর আহ্বান জানিয়েছেন।

এর পেছনে যুক্তি দিয়ে তিনি বলেন, এই পদক্ষেপ সরকারকে আমদানি ব্যয় কমাতে সাহায্য করবে।  পাকিস্তানের মন্ত্রী বলেন, সরকার ঋণ নিয়ে চা আমদানি করে।  তাই সরকার চায় চা আমদানিতে ব্যয় কমানো যায়।  পাকিস্তানি সংবাদপত্র এক্সপ্রেস ট্রিবিউনে প্রকাশিত এক খবরে বলা হয়েছে, মঙ্গলবার রাজধানী ইসলামাবাদে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে আহসান ইকবাল বলেন, "আমি দেশের জনগণকে প্রতিদিন এক বা দুই কাপ চা পান কমানোর আবেদন করছি। কারণ আমরা চা আমদানির জন্য টাকা ধার করি।"



আহসান ইকবাল পাকিস্তানের এই বেহাল দশার জন্য বিগত সরকারকে দায়ী করেন।  তিনি ইমরান খান সরকারের বিরুদ্ধে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করার অভিযোগ করেন।  এছাড়া দেশের অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নয়নে বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে ব্যবসায়ীদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি।  তিনি দোকানদারদের রাত সাড়ে 8টার মধ্যে বাজার বন্ধ করতে বলেন।



পাকিস্তান সরকার অর্থনৈতিক পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে মাত্র দুই মাসের জন্য 41 টি পণ্য আমদানি নিষিদ্ধ করেছিল।  কিন্তু এসব নিষেধাজ্ঞার কোনও উল্লেখযোগ্য প্রভাব আছে বলে মনে হয় না।  পাকিস্তানের আমদানি নিষেধাজ্ঞার কারণে আমদানি বিল মাত্র 60 কোটি ডলার কমেছে, যা মোট আমদানি ব্যয়ের মাত্র 5 শতাংশ।


'এমতাবস্থায় ইকবালের আবেদন পাকিস্তানের জনগণের ওপর বিশেষ কোনো প্রভাব ফেলতে পারেনি এবং একই সঙ্গে ভারতের জনগণ পাকিস্তানিদের আলাদাভাবে টেনে নিয়েছিল।  এমতাবস্থায় এখন মনে হচ্ছে ইকবাল এমন কোনো বক্তব্য দেওয়ার আগে অনেকবার ভাববেন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad