মোদীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ হাসিনা, ভারতকে বললেন প্রকৃত বন্ধু - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Sunday, 4 September 2022

মোদীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ হাসিনা, ভারতকে বললেন প্রকৃত বন্ধু


রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘর্ষের সময়, পূর্ব ইউরোপে আটকে পড়া তার দেশের শিক্ষার্থীদের উদ্ধারে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেওয়া উদ্যোগের প্রশংসা করেছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সংবাদ সংস্থা এএনআই-এর সাথে কথোপকথনে, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হাসিনা, মোদী সরকারের ভ্যাকসিন মৈত্রী কর্মসূচিরও প্রশংসা করেছেন, যার অধীনে কোভিড -১৯ টিকা প্রতিবেশী দেশগুলিতে সরবরাহ করা হয়েছিল।


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে ঘনিষ্ঠ সহযোগিতার ওপর জোর দেন। তিনি বলেন, মতবিরোধ থাকতে পারে, তবে আলোচনার মাধ্যমে তা সমাধান করা যেতে পারে। তিনি বলেন, অনেক ক্ষেত্রে ভারত ও বাংলাদেশ ঠিক একই কাজ করেছে।


প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ভূয়সী প্রশংসা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, 'ভারত সরকারের সমর্থনে বাংলাদেশি নাগরিকরা সহায়তা পেয়েছে। তিনি বলেন, যুদ্ধবিধ্বস্ত ইউক্রেন থেকে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের বের করে আনতে তিনি আমাদের অনেক সাহায্য করেছেন। হাসিনা বলেন, "আমি সত্যিই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে ধন্যবাদ জানাতে চাই। রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে এই যুদ্ধের সময় তিনি ভারতীয় ছাত্রদের সাথে আমাদের অনেক ছাত্রকে সরিয়ে নিতে সাহায্য করেছিলেন। সময়মতো বন্ধুত্ব দেখিয়েছিলেন। আমি এই উদ্যোগের জন্য প্রধানমন্ত্রী মোদীকে ধন্যবাদ জানাই।"


তিনি করোনা মহামারী চলাকালীন ভারত সরকার কর্তৃক পরিচালিত ভ্যাকসিন ফ্রেন্ডশিপ প্রোগ্রামেরও প্রশংসা করেন। শেখ হাসিনা বলেন, "এই উদ্যোগের জন্য আমি সত্যিই প্রধানমন্ত্রী মোদীকে ধন্যবাদ জানাই। তিনি শুধু বাংলাদেশকেই নয়, দক্ষিণ এশিয়ার কয়েকটি দেশেও ভ্যাকসিন দিয়েছেন। এটি সত্যিই খুব সহায়ক ছিল। এটি সত্যিই একটি বিচক্ষণ উদ্যোগ। এর পাশাপাশি আমরা ভারত থেকে আমাদের নিজস্ব টাকায় ভ্যাকসিন কিনেছি।" এর পাশাপাশি শেখ হাসিনা তার দেশের টিকা কার্যক্রম সম্পর্কেও তথ্য দেন। বাংলাদেশ তার জনসংখ্যার ৯০ শতাংশকে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন দিয়েছে।


শেখ হাসিনা ভারতকে প্রকৃত বন্ধু বলেছেন। তিনি বলেন, "ভারত সব সময় বাংলাদেশের পাশে দাঁড়িয়েছে। তিনি বলেন, "আমরা ১৯৭১ সালের যুদ্ধে ভারতের অবদান সবসময় মনে রাখি। এছাড়াও ১৯৭৫ সালে যখন আমরা আমাদের পরিবারের সকল সদস্যকে হারিয়েছিলাম, তখন তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী আমাদের ভারতে আশ্রয় দিয়েছিলেন।"

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad