প্রয়াত সুপারস্টার মহেশ বাবুর বাবা কৃষ্ণা - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Tuesday, 15 November 2022

প্রয়াত সুপারস্টার মহেশ বাবুর বাবা কৃষ্ণা


বিনোদন জগতে আবারও দুঃসংবাদ, প্রয়াত সাউথের সুপারস্টার মহেশ বাবুর বাবা তথা জনপ্রিয় তেলেগু অভিনেতা কৃষ্ণা। মঙ্গলবার ভোরে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান তিনি। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮০ বছর। রবিবার গভীর রাতে তার স্বাস্থ্যের অবনতি হয়, তারপরে তাকে হায়দরাবাদের একটি বেসরকারি  হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখানেই মঙ্গলবার ভোরে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।


সংবাদমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, কৃষ্ণার হার্ট অ্যাটাক হয়েছিল, যার পরে তিনি অজ্ঞান হয়ে যান। কার্ডিয়াক অ্যারেস্টের পর চিকিৎসকদের একটি মাল্টি-ডিসিপ্লিনারি দল তাকে চিকিৎসা দিচ্ছিল। কিন্তু শেষ রক্ষা হল না। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার ভোর ৪টায় অভিনেতা প্রয়াত হন। 


কৃষ্ণা বয়সজনিত সমস্যায় ভুগছিলেন। ১৩ নভেম্বর তিনি নিয়মিত চেকআপের জন্য হাসপাতালেও যান। আগের দিন হাসপাতাল থেকে পাওয়া রিপোর্টে বলা হয়, তাকে হাসপাতালে আনার পর ২০ মিনিটের জন্য সিপিআর দেওয়া হয়, এরপর তার অবস্থা স্থিতিশীল হয়। কিন্তু, ভাগ্যের ইচ্ছে হয়তো অন্য কিছু ছিল।


তাঁর স্ত্রী এবং মহেশ বাবুর মা ইন্দিরা দেবী এই বছরের সেপ্টেম্বরে মারা যান। তার বড় ছেলে রমেশ বাবু জানুয়ারি মাসে মারা যান। স্ত্রীকে হারানোর শোক থেকে বেরিয়ে আসতে পারেননি বলেও শোনা যাচ্ছে।  শুধু তাই নয়, এর আগে মহেশ বাবু তার বড় ভাই রমেশকেও হারিয়েছিলেন। রমেশ ৮ জানুয়ারী, ২০২২-এ মারা যান। রমেশ বাবু কৃষ্ণার বড় ছেলে।


মহেশ বাবুর মতো তাঁর বাবাও ছিলেন দক্ষিণের পরিচিত মুখ। ৩০০ টিরও বেশি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। তাঁর পুরো নাম ছিল ঘট্টা‌মানেনি শিব রাম কৃষ্ণ মূর্তি। তিনি একজন সফল পরিচালক ও প্রযোজকও ছিলেন। ২০০৯ সালে তিনি পদ্মভূষণ সম্মানে ভূষিত হন। কৃষ্ণা টিডিপি নেতা জয় গাল্লার শ্বশুরও ছিলেন। তিনি কংগ্রেসে যোগ দিয়েছিলেন এবং ১৯৮০- র দশকে এমপি হয়েছিলেন কিন্তু প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর মৃত্যুর পর রাজনীতি ছেড়ে দেন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad