শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারিতে বাজেয়াপ্ত ১১০ কোটি টাকার সম্পত্তি! - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Sunday, 18 December 2022

শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারিতে বাজেয়াপ্ত ১১০ কোটি টাকার সম্পত্তি!



কলকাতার একটি আদালত শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারির সাথে সম্পর্কিত একটি মানি লন্ডারিং মামলায় তৃণমূল কংগ্রেস বিধায়ক মানিক ভট্টাচার্য এবং অন্যদের বিরুদ্ধে দায়ের করা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি) চার্জশিট গ্রহণ করেছে।  শুক্রবার এই তথ্য দিয়েছে ইডি।



 প্রিভেনশন অফ মানি লন্ডারিং অ্যাক্টের (পিএমএলএ) অধীনে নথিভুক্ত মামলাগুলির বিষয়ে একটি বিশেষ আদালতে দাখিল করা চার্জশিটে ইডি, মানিক ভট্টাচার্য, তাঁর স্ত্রী সতরূপা ভট্টাচার্য, তাদের ছেলে সৌভিক ভট্টাচার্য, তাপস কুমার মণ্ডল (একটি শিক্ষক প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের মালিক) নামে একটি বিশেষ আদালতে দাখিল করেছেন। কনসালটেন্সি সার্ভিসেস এবং এডুক্লাস অনলাইনের মতো কোম্পানি সহ মোট ছয়টি ব্যক্তি ও সংস্থার নাম দেওয়া হয়েছে।



 ইডি শিক্ষক নিয়োগ কেলেঙ্কারিতে 56.15 কোটি টাকার সম্পত্তি সংযুক্ত করার পাশাপাশি 49.80 কোটি টাকা নগদ, সোনা এবং 5.08 কোটি টাকার গহনা বাজেয়াপ্ত করেছে৷  মামলায় মোট বাজেয়াপ্ত ও সংযুক্তির পরিমাণ 111 কোটি টাকা।  এই মামলায় তহবিলের অপব্যবহার তদন্ত করছে ইডি।



 নিয়োগ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ না হওয়া অনেককে লাখ লাখ টাকা ঘুষ নিয়ে শিক্ষক বানানো হয়েছে, যেখানে পদে যোগ্য ব্যক্তিদের উপেক্ষা করা হয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে।



এই কেলেঙ্কারিতে কলকাতা হাইকোর্ট বলেছে, প্রয়োজনে শিক্ষামন্ত্রীকেও তলব করা হবে।  স্কুল সার্ভিস কমিশন প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ করেছে যাদের নাম অবৈধভাবে সুপারিশ করা হয়েছিল।  ওই প্রার্থীদের নিয়োগ বাতিলের অনুমতি চেয়ে কমিশন কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছে।  এই মামলায় বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় সরাসরি শিক্ষামন্ত্রীর নাম উল্লেখ করেছিলেন।  শুক্রবার মামলা চলাকালে তিনি বলেন, মধ্য শিক্ষা পর্ষদই প্রকৃত অপরাধী বলে জানা যেতে পারে।  পর্ষদ কিছু করতে না পারলে শিক্ষামন্ত্রীকে তলব করা যেতে পারে।


No comments:

Post a Comment

Post Top Ad