এই বড় কারণগুলি পেশী ব্যথার পিছনে থাকতে পারে, এইভাবে আপনি আরাম পাবেন - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Monday, 23 January 2023

এই বড় কারণগুলি পেশী ব্যথার পিছনে থাকতে পারে, এইভাবে আপনি আরাম পাবেন

 




ব্যথা হওয়া সাধারণ ব্যাপার, তবে এর পেছনে অনেক কারণ থাকতে পারে। আমাদের ছোট ছোট ভুল পেশী ব্যথার কারণ হয়ে উঠতে পারে। আসুন জেনে নিই মাংসপেশির ব্যথার কারণ কী এবং কীভাবে তা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। 


পেশী ব্যথার কারণ: অনেকেরই প্রায়শই তাদের হাত, পা, জয়েন্ট, হাঁটু এবং কাঁধে ব্যথা হয়। অনেক সময় হঠাৎ করেই ব্যথার সমস্যা শুরু হয়। ব্যথার কারণে দৌড়াতে বা ভারী কোনো কাজ করতে অসুবিধা হয়। পেশীর চাপের কারণে এটি ঘটতে পারে। যদি ব্যথা হালকা হয় তবে আমরা এটিকে হালকাভাবে নিই, তবে এমন ব্যথার পিছনে অনেক কারণ থাকতে পারে। আসুন জেনে নিই পেশী ব্যথার পেছনের কারণগুলো কী কী হতে পারে। 


শরীরে পুষ্টির অভাব

সুস্থ থাকার জন্য শরীরে সব ধরনের পুষ্টির প্রয়োজন। পেশী এবং হাড় সুস্থ রাখতে ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, সোডিয়াম এবং পটাসিয়াম অপরিহার্য। এগুলোর ঘাটতির কারণে পেশিতে ব্যথার সমস্যা হতে পারে।


আরো হাঁটা

অতিরিক্ত হাঁটার কারণে পায়ের মাংসপেশিতে ব্যথা হতে পারে। বেশি দাঁড়িয়ে বা হাঁটার কারণে পায়ে ক্লান্তি ও ব্যথা হয়।


খেলার কারণে

অনেকেই খেলতে পছন্দ করেন। এই ধরনের লোকেরা ক্লান্ত হয়েও ফুটবল এবং ক্রিকেটের মতো খেলা খেলে। মানসিক চাপ থেকে মুক্তি পেতে অনেকেই খেলাধুলার আশ্রয় নেন। এ ধরনের গেম খেলে পেশিতে টান পড়তে পারে এবং ব্যথা শুরু হয়।


ভুল পথে ঘুমানো 

ভুলভাবে ঘুমালে পেশিতে ব্যথা হতে পারে। ভুল অবস্থানে ঘুমালে পেশী শক্ত হয়ে যায় এবং ব্যথা হতে পারে। ভুল উপায়ে ব্যায়াম করলেও ব্যথা হতে পারে। 


কম বিশ্রাম 

শরীরের জন্য যতটা গুরুত্বপূর্ণ কাজ, বিশ্রাম নেওয়া ততটা গুরুত্বপূর্ণ। মানুষ কাজে এতটাই ব্যস্ত হয়ে পড়ে যে বিশ্রামকে গুরুত্ব দেয় না। তবে বিশ্রাম খুবই গুরুত্বপূর্ণ। একটানা কাজ করার কারণে পেশিতে ব্যথার সমস্যা হতে পারে। 


এভাবেই মুক্তি পাবেন

মাংসপেশির ব্যথা উপশমের জন্য পুষ্টিসমৃদ্ধ জিনিস অন্তর্ভুক্ত করা উচিৎ । বিশ্রাম নেওয়াও জরুরি। যদি বেশি শারীরিক পরিশ্রম করতে হয় তাহলে বিশ্রাম নিলে উপকার হবে। গরম তেল দিয়ে ম্যাসাজ করলেও অনেকাংশে আরাম পাওয়া যায়।



বি.দ্র: এখানে দেওয়া তথ্য সাধারণ জ্ঞানের ওপর ভিত্তি করে লেখা- নতুন যে কোনও কিছু ট্রাই করার আগে চিকিৎসকের পরামর্শ অবশ্যই নিন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad