রাতে ভিজিয়ে রাখলে ওষুধি গুণে ভরপুর এই জিনিসগুলো, খেলে অসামান্য উপকার হয় - press card news

Breaking

Post Top Ad

Post Top Ad

Monday, 23 January 2023

রাতে ভিজিয়ে রাখলে ওষুধি গুণে ভরপুর এই জিনিসগুলো, খেলে অসামান্য উপকার হয়

 




কিছু খাবার ভিজিয়ে রাখা স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। অঙ্কুরিত জিনিস খেলে পরিপূর্ণ পুষ্টি পাওয়া যায় এবং অনেক রোগের ঝুঁকি চলে যায়। আসুন জেনে নিই কোন কোন জিনিস ভিজিয়ে খাওয়া উচিৎ । 


 মানুষ সুস্থ থাকার জন্য সম্ভাব্য সব উপায় অবলম্বন করে। অনেকে তাদের খাওয়া-দাওয়ার প্রতি খুব মনোযোগ দেন। দামি ড্রাইফ্রুট খান। কিন্তু খাওয়ার সঠিক উপায় না জানা পর্যন্ত এসব খেয়ে কোনো লাভ নেই। কিছু জিনিস ভিজিয়ে খাওয়া খুবই উপকারী। জলে ভিজিয়ে রাখলে এ ধরনের খাবারের অঙ্কুরোদগম শুরু হয়। এভাবে খেলে তাদের পুষ্টি বাড়ে এবং প্রচুর শক্তি পাওয়া যায়। এই ধরনের অঙ্কুরিত জিনিস খাওয়া শরীরের জন্য উপকারী। এগুলো খেলে অনেক রোগের ঝুঁকি চলে যায়। 


সবুজ মুগ

মুগ প্রোটিন, পটাসিয়াম এবং ম্যাগনেসিয়াম, ফাইবার এবং বি ভিটামিনের মতো পুষ্টিতে ভরপুর। ভেজানোর পর এটি খেলে উচ্চ রক্তচাপ, ডায়াবেটিস এবং ক্যান্সারের মতো রোগের ঝুঁকি দূরে থাকে। 


কিশমিশ 

কিসমিস পুষ্টিগুণে ভরপুর। এতে রয়েছে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট, পটাশিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম এবং আয়রনের মতো পুষ্টি উপাদান। ভিজিয়ে কিশমিশ খাওয়া খুবই উপকারী। এইভাবে কিশমিশ খেলে রক্তস্বল্পতা, কিডনিতে পাথর এবং অ্যাসিডিটির মতো রোগ দূরে থাকে।


ছোলা

অঙ্কুরিত ছোলা খাওয়া খুবই উপকারী। এভাবে ছোলা খাওয়া পরিপাকতন্ত্রের জন্য উপকারী। অঙ্কুরিত ছোলা খেলে কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা দূর হয়। এটি স্ট্যামিনা বাড়ায় এবং শরীরে শক্তি যোগায়।


আঞ্জির

 আঞ্জির জিঙ্ক, ম্যাগনেসিয়াম, আয়রন, প্রোটিন এবং ভিটামিন সমৃদ্ধ। ভেজানো আঞ্জির খাওয়া ওজন ও কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে। ভেজানো আঞ্জির শরীরে রক্তের অভাব দূর করে।


বাদাম

ভিটামিন এ, ভিটামিন ই এবং অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ বাদাম ভিজিয়ে খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী বলে মনে করা হয়। এইভাবে বাদাম খেলে মস্তিষ্ক শক্তিশালী হয়। এটি হার্টের জন্যও উপকারী।


মেথি

মেথিতে অনেক পুষ্টি উপাদান রয়েছে। এটি ভিজিয়ে খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। ভেজানো মেথি খেলে স্থূলতা, কোলেস্টেরল ও সুগার নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। এভাবে মেথি খেলে হজম সংক্রান্ত সমস্যাও দূর হয়।



বি.দ্র: এখানে দেওয়া তথ্য সাধারণ জ্ঞানের ওপর ভিত্তি করে লেখা- নতুন যে কোনও কিছু ট্রাই করার আগে চিকিৎসকের পরামর্শ অবশ্যই নিন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad